ফরিদপুর সদর

ফরিদপুরে নবজাতকসহ দুটি লাশ উদ্ধার

সোহাগ জামান।
ফরিদপুরে নিখোঁজের ২০ ঘন্টা পর এক ব্যাক্তির ভাসমান লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। রবিবার সকাল ১০টার দিকে ফরিদপুর সদরের চর মাধবদিয়া ইউনিয়নের জমাদ্দার বাড়ি তালতলা এলাকার একটি খাল থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়। মৃত ওই ব্যাক্তির নাম মানা মন্ডল (৫৪)। তিনি চর মাধবদিয়া ইউনিয়নের জমাদ্দার বাড়ি গ্রামের মৃত গ্যাপন মন্ডলের ছেল।
এলাকাবাসী সুত্রে জানা গেছে, গত শনিবার দুপুর ২টার দিকে বাড়ি থেকে বের হয়ে নিখোঁজ হন মনো মন্ডল। এরপর থেকে সারারাত তিনি বাড়িতে ফিরে আসেননি। রবিবার সকাল ১০টার দিকে ওই ব্যাক্তির বাড়ি থেকে আনুমানিক ২৫০ গজ দূরে তালতলা এলাকার পানি উন্নয়ন বোর্ডের একটি খালে ওই ব্যাক্তিকে ভাসমান অবস্থায় দেখতে পান এলাকাবাসী।
চর মাধবদিয়া ইউনিয়ন পরিষদের ইউপি চেয়ারম্যান মির্জা সাইফুল ইসলাম আজম বলেন, পরে বিষয়টি ফরিদপুর কোতয়ালী থানায় জানালে পুলিশ এসে লাশটি উদ্ধার করে। তিনি বলেন, মৃত ওই ব্যাক্তি মানসিক ভাবসাম্যহীন ছিলেন। এছাড়া তিনি চোখেও কম দেখতেন।
ফরিদপুর কোতয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোরশেদ আলম বলেন, লাশটি উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। তিনি বলেন, এ ব্যাপারে থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা হয়েছে। ময়না তদন্তের প্রতিবেদন পাওয়ার পর পরবর্তি আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এদিকে, এক নবজাতকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। রবিবার সকাল ৮টার দিকে শহরের থানারোড এলাকায় জেলা আওয়ামী লীগ অফিস সংলগ্ন একটি ফুলের দোকানের ডাস্টবিন থেকে মৃতদেহটি উদ্ধার করা হয়।
জানা যায়, সকালে ফুলের দোকানের ওই ডাস্টবিনে মৃত অবস্থায় ওই নবজতক ছেলে শিশুটিকে দেখে পুলিশে খবর দেয় এলাকাবাসী। পরে ফরিদপুর কোতয়ালী থানার পুলিশ এসে লাশটি উদ্ধার করে।
ফরিদপুর কোতয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোরশেদ আলম বলেন, লাশটি উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ব্যাপারে থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *