30 Srabon 1429 বঙ্গাব্দ সোমবার ১৫ অগাস্ট ২০২২
Home » ফরিদপুরের সংবাদ » ফরিদপুর সদর » যখনই জাতি বিপদের মুখে পতিত হয় তখনই জাকের পার্টি কাছে এসে দাঁড়ায় — আমীর ফয়সল

যখনই জাতি বিপদের মুখে পতিত হয় তখনই জাকের পার্টি কাছে এসে দাঁড়ায় — আমীর ফয়সল

আবু নাসের #
জাকের পার্টি চেয়ারম্যান মোস্তফা আমীর ফয়সল বলেছেন, নির্বাচন কমিশনের নিরপেক্ষতা বা পক্ষপাতিত্ব নিয়ে কথা নয়। আসলে দল নিরপেক্ষ ব্যাক্তি কি আছে? নির্বাচন কমিশন গঠন প্রশ্নে আবার নির্বাচনকালীন সরকার নিয়েও কথা হচ্ছে। কিন্তু প্রশ্ন হচ্ছে সেই নিরপেক্ষতা নিয়ে। কারণ নির্বাচনে যে দল হারবে, সে দল নিরপেক্ষতা নিয়ে প্রশ্ন তুলবেই। তারপরে শুরু হয়ে যাবে ঝগড়া-বিবাদ অশান্তি। আমরা শান্তি চাই।
আজ শুক্রবার বিকালে   ফরিদপুর সদর উপজেলার কৈজুরী জাকের মঞ্জিলে আয়োজিত এক ইসলামী সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।
অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তৃতা করেন জাকের পার্টির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান  ড.সায়েম আমীর ফয়সল।
ফরিদপুর জেলা জাকের পার্টি সভাপতি মশিউর রহমান যাদু মিয়ার সভাপতিত্বে সমাবেশে অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন জাকের পার্টির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব শামীম হায়দার।
মোস্তফা আমীর ফয়সল বলেন, নিরপেক্ষতা কঠিন কাজ। ১৯৭৩  পর্যন্ত নির্বাচন নিয়ে কথা হয়নি। ‘৭৫ এর বেদনাদায়ক  রক্তাক্ত অধ্যায় পরবর্তী থেকে নির্বাচন নিয়ে ঝগড়া-বিবাদ অশান্তি হচ্ছে। যা কোনভাবেই থামছে না। এ ধারা অব্যাহত থাকলে জাতির জন্য তা শুভ হবেনা কল্যাণকর হবে না।
জাকের পার্টি চেয়ারম্যান বিরাজমান বাস্তবতা তুলে ধরে  সতর্কবাণী উচ্চারণ করে বলেন, সামনে ভয়াবহ বিপদের সম্ভাবনা। উদ্ভূত যেকোনো পরিস্থিতি মুকাবেলায় জাকের পার্টি প্রস্তুত আছে। উপমহাদেশে অনাকাঙ্ক্ষিত কোন যুদ্ধাবস্থা তৈরি হোক আমরা তা চাই না। ‘৭১ এর ন্যায় জাতিকে  আবার ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। দেশের অর্থনৈতিক ধারা শক্তিশালী করতে হবে।  ভিতকে মজবুত করতে হবে।
এ সময় সমবেত জনতার উদ্দেশ্যে জাকের পার্টি চেয়ারম্যান  আহ্বান রেখে বলেন, আমি যদি আগুনে ঝাপ দিতে বলি, আপনারা কি ঝাপ দিবেন? পানিতে ঝাঁপ দিতে বললে কি ঝাপ দিবেন?  পদযাত্রা করে ঢাকায় লংমার্চে আসতে বললে কি আসবেন? প্রতুত্তরে সমবেত জনতা দুই হাত তুলে সমস্বরে তাদের দৃঢ় সম্মতি ও অঙ্গীকার ব্যক্ত করেন।
জাকের পার্টি চেয়ারম্যান বলেন, দেশের স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব এবং স্থিতিশীলতা রক্ষায় জাকের পার্টি  বদ্ধপরিকর। হানাহানি,দ্বন্দ,সংঘাত নয়,ঐক্য,ভ্রাতৃত্ব এবং সম্প্রীতি আমাদের লক্ষ্য। দেশের অগ্রগতি আমাদের কাম্য।
মোস্তফা আমীর ফয়সল  বলেন, বর্তমান সফল সরকারকে সহায়তা দেওয়া এখন সময়ের দাবী। বাংলাদেশ সামরিক কৌশলগত দিক থেকে দক্ষিন এশিয়ায়  অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠেছে। অতীতের সন্ত্রাসের বিবরণ তুলে ধরে বাংলাদেশকে সন্ত্রাসী রাষ্ট্র বানানোর প্রচেষ্টা দেখা যাচ্ছে। সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে।
মোস্তফা আমীর ফয়সল দৃঢ় অঙ্গীকার ব্যক্ত করে বলেন, দেশের স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব ও  স্থিতিশীলতা রক্ষায় আমরা পূর্ণ প্রস্তুত হয়েই আছি।  যদি দেশের স্বার্থ বিঘ্নিত হয়, আন্তর্জাতিক ষড়যন্ত্র হয়, মহাজোট সরকার যদি তাদের সাথে না পারে,  ষড়যন্ত্রকারীরা যদি সফল হতে থাকে ,তাহলে আমরা প্রতিরোধ করবো। মহা জোট সরকার অসমর্থ হলে,তার পরেই আছে জাকের পার্টি।
মোস্তফা আমীর ফয়সল স্মরণ করিয়ে দিয়ে বলেন, যখনই জাতি বিপদের মুখে পতিত হয় তখনই জাকের পার্টি কাছে এসে দাঁড়ায়। এখনো সে দায়িত্ব থেকে পিছপা হবে না। জাকের পার্টি ছিল, আছে, থাকবে।
জাকের পার্টি চেয়ারম্যান বলেন, মনে রাখতে হবে শান্তি,সাম্য, ঐক্য ও প্রগতি ধরে রাখতেই হয়  মহাজোট, যার সৃষ্টিতে আছে জাকের পার্টি। তিনি আরো বলেন, নির্বাচন আমাদের কাছে মূখ্য নয় । আমাদের কাছে মুখ্য হচ্ছে  জাতীয় স্বার্থ। জাতীয় স্বার্থকে প্রাধান দিয়েই যাবো আমরা। জাতির জন্য যা করার  তাই  করবো।  তিনি বলেন, জাকের পার্টির বিজয় হবেই হবে ইনশাআল্লাহ।
জাকের পার্টি চেয়ারম্যান ইসলামের মানবিক সৌন্দর্য  বিনষ্টের চক্রান্তকারীদের অপতৎপরতায় বিভ্রান্ত না হওয়ার আহ্বান জানিয়ে   বলেন, যারা ইসলামের নামে অশান্তি সৃষ্টি করে, তাদের মুসলমানদের দলে অন্তর্ভুক্ত করা যায় না। ইসলামের নামে ফেতনা সৃষ্টি করা মানুষ হত্যার চাইতেও ভয়াবহ। তিনি আরো বলেন, ইসলাম প্রেমের ধর্ম। শান্তি, ঐক্য ও সাম্যের ধর্ম।অথচ  হঠকারিতা করে মুসলমানদের মধ্যে ভেদাভেদ তৈরি করা হয়েছে। ঐক্য সাম্য ভ্রাতৃত্ব বিনষ্ট করা হয়েছে। এ পথ থেকে সরে আসতে হবে। কেননা  ইসলাম  মুসলমানসহ অন্যান্য ধর্মাবলম্বীদের  নিরাপত্তার গ্যারান্টি।
মোস্তফা আমীর ফয়সল এ প্রসঙ্গে আরো বলেন, এ দেশ ওলী আউলিয়াগনের দেশ। ইসলামের সুমহান আদর্শ যারা বিকৃত করতে চায়, তাদের সে অপচেষ্টা সফল হবে না। ইসলামের নামে মানুষ হত্যা করে যারা ইসলামকে মানুষের কাছে ভয়াল হিসেবে তুলে ধরতে চায়,মানুষের কাছে অপছন্দনীয় করাতে চায়, তাদের ঘৃণ্য এ ষড়যন্ত্র কোন দিন সফল হবে না ইনশাআল্লাহ।
তিঁনি আরো বলেন,  আমরা মানুষের উপড় লাঠি তুলি না। খুন করি না। অশান্তি ও সংকট সৃষ্টি করি না। ৭৩ বছরের পার্টি জাকের পার্টি। তবে প্রকাশ হয়েছে ৩২ বছর আগে। আর জাকের পার্টি সুদৃঢ় ভিত্তির উপর প্রতিষ্ঠিত।
মোস্তফা আমীর ফয়সল বলেন, জাকের পার্টির বিকল্প নেই। শান্তিপূর্ণ উপায়ে জাকের পার্টি তার লক্ষ্য ও  গন্তব্যে পৌঁছাবে।
বিশেষ অতিথির বক্তৃতায় জাকের পার্টির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান ড. সায়েম আমীর ফয়সল বলেন, বাংলাদেশে উগ্রবাদ, জঙ্গীবাদ বিস্তারের অপচেষ্টা হচ্ছে। কিন্তু তা করতে দেয়া যাবে না। তিনি বলেন, বিশ্ব ওলী হযরত শাহ্সুফী খাজাবাবা ফরিদপুরী ( কুঃছেঃআঃ) ইসলাম প্রচার করেছেন কোন রক্তপাত না করে।
ড. সায়েম আমীর ফয়সল বলেন, ৩২ বছর আগে রাজনীতির মুলধারায় আমরা আগমন করেছি। আমরা শান্তি ও কল্যাণের রাজনীতি করি। মানুষের টাকা আত্মসাৎ করি না। খুনের রাজনীতিও করি না।

আরও পড়ুন...

বঙ্গমাতা ফজিলাতুন নেছা মুজিবের জন্ম বার্ষিকী উপলক্ষে বৃক্ষরোপন

সোহাগ জামান। বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুননেছা মুজিবের ৯২তম জন্ম বার্ষিকী উপলক্ষে ফরিদপুরে বৃক্ষরোপন করা হয়েছে। আজ …

ফরিদপুরে এফএনবি’র সভাপতি আশরাফুল হাসান-সম্পাদক সাব্বির

কামরুজ্জামান সোহেল। এনজিও ফেডারেশন বাংলাদেশ (এফএনবি) ফরিদপুর জেলা কমিটির নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার দুপুরে শহরের …