27 Ashar 1427 বঙ্গাব্দ শনিবার ১১ জুলাই ২০২০
Home » ফরিদপুরের সংবাদ » মধুখালী » ফরিদপুর চিনিকলের শ্রমিক-কর্মচারীদের বিক্ষোভ

ফরিদপুর চিনিকলের শ্রমিক-কর্মচারীদের বিক্ষোভ

মধুখালী প্রতিনিধি #
ফরিদপুর চিনিকলের শ্রমিক, কর্মচারী,কর্মকর্তারা তিন মাসের বেতন-ভাতা না পাওয়ার কারনে আর্থিক সংকটে ভুগছে। আর সেই সাথে চলছে মানবেতর জীবনযাপন। বেতন ভাতা ও অন্যান্য পাওনার দাবিতে মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৮ টায় ফরিদপুর চিনিকলের প্রধান ফটকে সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে বিক্ষোভ সমাবেশ হয়েছে। এ সময় সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন শ্রমজীবী ইউনিয়নের সভাপতি শাহ মো. হারুন অর রশিদ, সাধারন সম্পাদক কাজল বসু, সহ সভাপতি মনিরুল ইসলাম,অর্থ সম্পাদক মনিরুজ্জামান মিন্টু, সাবেক শ্রমিক নেতা আবুল বাশার বাদশা, শাহিন মিয়া প্রমুখ।
মিলের শ্রমিক-কর্মচারীরা জানান, মিলের আখচাষী থেকে শুরু করে ব্যবসায়ী, কর্মরত শ্রমিক, কর্মচারী, কর্মকর্তাসহ এ শিল্পের সাথে সংশ্লিষ্ট সকলকেই বর্তমানে মানবেতরভাবে দিন কাটাচ্ছেন। সময়মত আখচাষীদের পাওনা পরিশোধ না করা, কর্মরতদের বেতন-ভাতা না পাওয়ার কারনে হাজারো শ্রমিক-কর্মচারীরা এখন পরিবার পরিজন নিয়ে হতাশার মধ্যে দিনযাপন করছেন। চিনিকলে কর্মরত প্রায় ৮ শত শ্রমিক কর্মচারীবৃন্দ ফেব্রুয়ারী, মার্চ ও চলতি এপ্রিল মাসের বেতন না পেয়ে আর্থিক সংকটে দিন অতিবাহিত করছে। ঠিকমত নিত্যপণ্যের বাজার না করতে পেরে মানবেতর জীবনযাপন করছে।
জানা গেছে, ফরিদপুর চিনিকলে আখচাষীদের আখের মূল্য বাবদ প্রায় ৮ কোটি টাকা টাকা পাওনা রয়েছে এবং স্থায়ী ও মৌসুমী এবং দৈনিক ভিত্তিতে(ম্যান-ডে) কর্মরতদের বেতন-ভাতা বাবদ প্রায় ৫ কোটি, অবসরপ্রাপ্তদের গ্র্যাচুইটি বাবদ প্রায় ১৮ কোটি টাকা পাওনা রয়েছে। এদিকে, আখের মূল্য সময়মত না পেয়ে আখচাষীরা আখের আবাদ করতে আগ্রহ হারিয়ে ফেলতে হচ্ছে। এমনিতে আখ দীর্ঘ মেয়াদী কৃষি ফসল। জমিতে দীর্ঘদিন রাখতে হয়। এর পর আখ মিলে সরবরাহ করার দীর্ঘ সময় পরে যদি আখের টাকা পায় তাহলে ঐসব আখচাষীদের আর ধৈর্য্যর সীমা থাকে না। আর এ কারনে আখ চাষ ক্রমান্ময়ে হ্রাস পাচ্ছে। ইতিমধ্যে বেতন ভাতার বিষয়ে ফরিদপুর চিনিকল শ্রমজীবী ইউনিয়ন উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও ফরিদপুরের জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী বরারর স্মারকলিপি প্রদান করেছে। চিনিকল শ্রমিক কর্মচারী ফেডারেশনের কার্যকরী সভাপতি কাজল বসু জানান, বেতন-ভাতা না পেয়ে আর্থিক সংকটের কারনে শ্রমিক-কর্মচারীরা দীর্ঘদিন যাবৎ মানবেতর জীবনযাপন করছে।
ফরিদপুর চিনিকলের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. আব্দুল বারী জানান, এ মিলের কর্মরতদের বেতন না পাওয়ার কারনে অনেক কষ্টে দিন যাপন করছে। বেতন-ভাতার বিষয়ে সদরদপ্তরে জানানো হয়েছে। চিনি বিক্রি করে বেতনভাতা দেওয়ার বিষয়ে বলা হয়েছে। চিনি বিক্রি হলে খুব দ্রুতই বেতন ভাতা ও আখের মূল্য পরিশোধের ব্যবস্থা করা হবে।

আরও পড়ুন...

মধুখালীতে নিখোঁজের ১দিন পর স্কুল ছাত্রের লাশ উদ্ধার

ফরিদপুরের মধুখালীতে নিখোঁজের একদিন পর দিপু বৈদ্য (১৭) নামের দশম শ্রেনীর এক স্কুল ছাত্রের লাশ …

মধুখালীতে মাদকাসক্ত বড় ভাইয়ের হাতে ছোট ভাই খুন

ফরিদপুরের মধুখালী উপজেলার বাগাট ইউনিয়নের দক্ষিণ চরবাগাট গ্রামে মাদক আসক্ত বড় ভাইয়ের হাতে খুন হয়েছে …