2 Poush 1426 বঙ্গাব্দ সোমবার ১৬ ডিসেম্বর ২০১৯
Home » ফরিদপুরের সংবাদ » বোয়ালমারী » বোয়ালমারীতে চাঁদা না দেয়ায় এতিমখানার ভবন নির্মাণ কাজ বন্ধ

বোয়ালমারীতে চাঁদা না দেয়ায় এতিমখানার ভবন নির্মাণ কাজ বন্ধ

বিশেষ প্রতিবেদক # ফরিদপুরের বোয়ালমারী পৌর এলাকায় অবস্থিত ছোলনা মধ্যপাড়া রওজাতুল এতিমখানা ও মাদ্রাসার ভবনের নির্মান কাজ বন্ধ করে দেবার অভিযোগ উঠেছে। দাবীকৃত চাঁদা না দেয়ায় ভবন নির্মান কাজ বন্ধ করার অভিযোগ করেছে এতিমখানা কতৃপক্ষ। দীর্ঘদিন যাবত কাজ বন্ধ থাকায় নির্মান সামগ্রী খোলা আকাশের নীচে থেকে নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। অন্যদিকে, ভবন নির্মান না হওয়ায় এতিমখানার কয়েকশ শিক্ষার্থীর পড়ালেখায় বিঘœ ও আবাসন সংকট চলছে। এতিমখানার ভবন নির্মানে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ চেয়ে এবং চাঁদাবাজদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহনের দাবীতে সংবাদ সম্মেলন করা হয়েছে।

রবিবার দুপুরে ছোলনা মধ্যপাড়া রওজাতুল মাদ্রাসায় এ সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। মাদ্রাসার সভাপতি মোসাদ্দেক হোসেন অভিযোগ করে বলেন, স্থানীয় একটি চক্র এতিমখানা ও মাদ্রাসা ভবন নির্মানে বাঁধা প্রদান করছে। গত ৪ জুলাই এতিমখানার নতুন ভবন নির্মান কাজ শুরু করা হলে স্থানীয় একটি চক্র কাজে বাঁধা প্রদান করে। তারা ২০ হাজার টাকা চাঁদা দাবী করে। চাঁদা না দেবার কারনে মনোয়ার হোসেন, রফিক মোল্যা গংরা এতিমখানা ভবনের নির্মান কাজ জোরপূর্বক বন্ধ করে দেয়। ভবন নির্মানের জন্য আনা ইট, বালি, সিমেন্ট এবং রড খোলা আকাশের নীচে থেকে তা নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। এতিমখানা ও মাদ্রাসার শিক্ষকেরা জানান, এতিমখানায় অধ্যায়নরত সাড়ে চারশত শিশু শিক্ষার্থীদের পড়ালেখা বিঘœ ঘটছে। দুইটি ছাপড়া ঘরের মধ্যে তাদের পড়ালেখা করতে হচ্ছে। ঘর দুটি জরাজীর্ন থাকায় বেশ রোদ-বৃষ্টিতে পড়ালেখা চালানো অসম্ভব হয়ে পড়েছে। নতুন ভবন নির্মান না হওয়ায় বেশকিছু শিক্ষার্থীকে মসজিদে পড়ালেখা করতে হচ্ছে। তাছাড়া এতিমদের থাকার জন্য একটি ঘরের অবস্থা নাজুক। ফলে এতিম শিশুরা নিদারুন কষ্টের মধ্যে থাকতে হচ্ছে। নতুন ভবন তৈরী হলে তাদের সমস্যার সমাধান হয়ে যেতো।

এতিমখানা কতৃপক্ষের অভিযোগ, চাঁদাবাজদের বিরুদ্ধে বোয়ালমারী থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়। মামলা দায়েরের পর আসামীরা আরো ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে। এতিমখানায় থাকা ছোট ছোট শিশুদের নানা ভাবে ভয়ভীতি দেখানো হচ্ছে। যে কোন সময় হামলার ঘটনাও ঘটাতে পারে তারা। এতিম শিশুদের নিরাপত্তার স্বার্থে এবং এতিমখানা মাদ্রাসার বিষয়ে প্রশাসনের জরুরী হস্তক্ষেপ কামনা করা হয়।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন মাদ্রাসার শিক্ষক হাফেজ জাহিদুল ইসলাম, হাফেজ নাজমুল হক, হাফেজ আবু জাফর, মাওলানা বায়েজিদ হোসেন প্রমুখ। এ বিষয়ে বোয়ালমারী থানার ওসি একে এম শামীম হাসান জানান, চাঁদাবাজীর একটি মামলা হয়েছে। আসামীরা বর্তমানে জামিনে রয়েছে। বর্তশানে তদন্ত চলছে, তদন্তের পর প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

আরও পড়ুন...

বোয়ালমারীতে ট্রেন-থ্রি হুইলারের সংঘর্ষে আহত ৭

ফরিদপুরের বোয়ালমারী পৌরসভার আমগ্রাম-চালিনগর রেলগেটে কালুখালী-থেকে ভাটিয়াপাড়া গামী ট্রেনের সঙ্গে ইঞ্জিনচালিত থ্রি হুইলারের মুখোমুখি সংঘর্ষে …

বোয়ালমারীতে মাদকাসক্ত যুবকের হামলায় ভ্যানচালক আহত

বোয়ালমারী প্রতিনিধি # ফরিদপুরের বোয়ালমারীতে মাদকাসক্ত যুবকের হামলায় ভ্যানচালক বাচ্চু শেখ (৩০) মারাত্মক আহত হয়ে …